Twitter

Follow palashbiswaskl on Twitter

Friday, November 15, 2013

মাওবাদী আঁতাঁত কংগ্রেসের, দাবি

মাওবাদী আঁতাঁত কংগ্রেসের, দাবি
narendra-modi-jaipur-295
বেমতারা: সুকমায় কংগ্রেস নেতৃত্বের উপর মাওবাদী হামলার পর বিদ্রোহীদের সঙ্গে হাত মেলানোর আঙুল উঠেছিল রামন সিং সরকারের দিকে৷ নির্বাচনী প্রচারে সেই চালই নিজস্ব ঢঙে উল্টে দিলেন নরেন্দ্র মোদী৷ ছত্তিসগড়ের বেমতারার জনসভায় বিজেপির প্রধানমন্ত্রী পদপ্রার্থী অভিযোগ করেছেন, মাওবাদীদের শান্ত রাখতে তাদের সঙ্গে সমঝোতায় আসে প্রদেশ কংগ্রেস৷ একই সঙ্গে ভূয়সী প্রশংসা করেছেন বর্তমান মুখ্যমন্ত্রী রামন সিংয়ের ভূমিকারও৷ 
মোদীর কথায়, 'মাওবাদীদের সঙ্গে লড়াই করার মুরোদই নেই কংগ্রেসের৷ তাই ওদের সঙ্গে লোকচক্ষুর অন্তরালে সমঝোতা করে তারা৷ রামন সিং কিন্ত্ত নিজের কাজটা করছেন, মাওবাদীদের সঙ্গে লড়ছেন৷' মাওবাদী নাশকতার সতর্কতা থাকা সত্ত্বেও ছত্তিসগড়ে প্রথম দফার ভোটে বড় কোনও গোলমাল হয়নি, ভোটের পরিমাণও বেড়েছে আগের বারের থেকে৷ ফলে দ্বিতীয় দফার ভোটের আগে বেশ কিছুটা আত্মবিশ্বাসী ছত্তিসগড় সরকার৷ সেই আত্মবিশ্বাসের চিহ্ন ছিল এ দিন মোদীর ভাষণেও৷ ছত্তিসগড়ের 'আদিবাসী ভাইবোনদের' গণতন্ত্রের উপর আস্থা রাখার জন্য সাধুবাদ জানিয়েছেন৷ বিশেষভাবে প্রশংসা করেছেন ছত্তিসগড়ে কর্তব্যরত সেনাবাহিনীর জওয়ানদেরও৷ আর প্রত্যাশিতভাবেই তুলোধোনা করেছেন কংগ্রেসকে৷ লক্ষ্য ছিল নির্বাচনের ক'দিন আগে ছত্তিসগড়ে সনিয়া গান্ধীর জনসভা-সহ একাধিক ইস্যু৷
ওই সভায় সনিয়া বলেছিলেন, কেন্দ্র থেকে কোটি কোটি টাকা রাজ্যের তহবিলে পাঠানো হলেও রাজ্যের উন্নয়নে তার কিছুই কাজে লাগায়নি রামন সিংয়ের নেতৃত্বে বিজেপি সরকার৷ এই নিয়ে মোদীর এ দিন বক্তব্য, 'কংগ্রেস বড়াই করছে, ওরা নাকি কোটি টাকা পাঠিয়েছে রাজ্যের জন্য৷ তার জন্য ধন্য হয়ে যেতে হবে? ছত্তিসগড়ের মানুষ ভিখিরি নাকি? ওই টাকা ওঁদের কাকার সম্পত্তি নয়, করদাতাদের টাকা, দেশের টাকা৷ এটা অহঙ্কারের লক্ষণ৷' সনিয়াকে ছত্তিসগড়ে আসার আগে হোমওয়ার্ক করে আসার পরামর্শও দিয়েছেন তিনি৷ তাঁর কথায়, 'কোন কংগ্রেস-শাসিত রাজ্যে বিনামূল্যে খাদ্য দেওয়া হয়? দিল্লিতে যেখানে সনিয়া জি, প্রধানমন্ত্রী জি, শাহজাদা বসে আছেন, সেখানেও কি সরকার ২৪ ঘণ্টা বিদ্যুত্‍ জোগান দিতে পারে? ছত্তিসগড়ের জন্য সরকার যা করেছে তা নিয়ে প্রশ্ন তোলা অর্থহীন৷ গরিবদের ওরা মানুষ বলে মনে করে না, শুধু ভোটের খেলার ঘুঁটি ভাবে৷'
আক্রমণের নিশানা হয়েছে কংগ্রেসের মুখ্যমন্ত্রী পদপ্রার্থী ঘোষণা না করার সিদ্ধান্তও৷ অভিযোগ তুলেছেন, এ ভাবে মানুষকে বিভ্রান্ত করছে কংগ্রেস৷ তাঁর কথায়, 'সবার মুখে একটাই প্রশ্ন, কংগ্রেসের মুখ্যমন্ত্রী পদপ্রার্থী কে? চুপিচুপি জিজ্ঞেস করলে, বা স্টিং অপারেশন করলে কিন্ত্ত জানা যাবে, নামটা অজিত যোগী৷ বিজেপি কিন্ত্ত স্পষ্টভাবে রামন সিংয়ের নাম জানিয়েছে৷ কংগ্রেস এ ভাবেই আপনাদের ধোঁকা দিচ্ছে৷' - সংবাদসংস্থা 

No comments:

Post a Comment

Related Posts Plugin for WordPress, Blogger...

Welcome

Website counter

Followers

Blog Archive